1. harezalbaki@gmail.com : Harez :
  2. khondakar.mithu@gmail.com : Shakil Ahmed : Shakil Ahmed
  3. focusbd.info@gmail.com : Mithu :
মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১, ০১:৪৭ পূর্বাহ্ন

দেশে জঙ্গি হামলার আশঙ্কা পুলিশকে ১২ দফা নির্দেশনা

প্রতিবেদক
  • সংস্করণ : সোমবার, ২৭ জুলাই, ২০২০
  • ৪৫ বার দেখা হয়েছে

আসন্ন ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে জঙ্গিগোষ্ঠী আইএসের কথিত ‘বেঙ্গল উলায়াত’ ঘোষণার উদ্যোগে দেশে জঙ্গি হামলার আশঙ্কা করা হচ্ছে। সম্ভাব্য হামলা প্রতিরোধে ১২ দফা নির্দেশনা বাস্তবায়নের সুপারিশ করেছে পুলিশ।

পুলিশের এআইজি (মিডিয়া) সোহেল রানা দেশ রূপান্তরকে সোমবার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সংশ্লিষ্ট সূত্রগুলো জানায়, বৈশ্বিক ও জাতীয় প্রেক্ষাপট বিবেচনা, নিজস্ব তথ্য-উপাত্ত এবং প্রাপ্ত গোয়েন্দা তথ্য পর্যালোচনায় জানা গেছে, তথাকথিত ইসলামিক স্টেট (আইএস) আসন্ন ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে কথিত ‘বেঙ্গল উলায়াত’ ঘোষণার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে।

আন্তর্জাতিক ও আঞ্চলিক ঘটনা প্রবাহ বিশ্লেষণে দেখা যায়, সাধারণত কোনো সন্ত্রাসী হামলার মাধ্যমেই কথিত উলায়াত ঘোষণা করা হয়। এ অবস্থায় আইএস মতাদর্শের দেশীয় অনুসারী ‘নব্য জেএমবি’র সদস্যরা সন্ত্রাসী হামলা (আত্মঘাতী) পরিচালনা করতে পারে প্রতীয়মান হয়।

পুলিশ সদস্য, পুলিশের স্থাপনা ও যানবাহন, বিমানবন্দর, দূতাবাস বিশেষ করে যুক্তরাষ্ট্র, ভারত ও মিয়ানমার কিংবা এসব দেশের স্থাপনা ও ব্যক্তি এবং শিয়া ও আহমদিয়া মসজিদ, মাজার কেন্দ্রিক মসজিদ, মন্দির, চার্চ ও প্যাগোডায় হামলা চালানোর পরিকল্পনা থাকতে পারে জঙ্গিদের।

সম্ভাব্য হামলা ঠেকাতে ১২ দফা নির্দেশনায় পুলিশ সদস্যদের ব্যক্তিগত নিরাপত্তা সচেতনতা ও নিরাপত্তা দায়িত্ব পালনে পেশাদারিত্ব নিশ্চিত করতে বলা হয়েছে।

কার্যকর চেকপোস্ট নিশ্চিত করা ও সন্দিগ্ধ ব্যক্তির দেহ কিংবা বহনকৃত ব্যাকপ্যাক যথাযথভাবে তল্লাশি করার সুপারিশ করা হয়েছে।

পুলিশের স্থাপনায় পুলিশের পোশাক পরে প্রবেশের চেষ্টা করতে পারে তাই পোশাকে থাকলেও পরিচিতি নিশ্চিত করার কথা বলা হয়েছে।

বিদেশিদের ব্যক্তি নিরাপত্তা ও স্থাপনা সমূহের নিরাপত্তা জোরদার করা, উপাসনালয়ের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার সুপারিশ করা হয়েছে।

এছাড়া ব্লক রেইড ও পুলিশের দৃশ্যমানতা বৃদ্ধি করা এবং শহর ও শহরতলী এলাকাগুলোতে মেস এবং নতুন ভাড়াটিয়াদের নজরদারির মধ্যে আনার কথা বলা হয়েছে।

এআইজি সোহেল রানা বলেন, ‘জঙ্গিবাদ সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। তবুও দেশ ও জনগ‌ণের স‌র্বোচ্চ সুরক্ষা ও কল্যাণ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে ন্যূনতম কো‌নো আশঙ্কার সু‌যোগ আমরা রাখ‌তে চাই না।’

তিনি বলেন, ‘অতীতে উৎসব বা উপলক্ষ্য কেন্দ্রিক হামলা আমরা দেখেছি। তাই, নিয়মিত কার্যক্রমের পাশাপাশি এবং এর অংশ হি‌সে‌বে আমরা সকল উৎসব এবং জাতীয় গুরুত্বপূর্ণ অনুষ্ঠানের আগে সংশ্লিষ্ট সকল ইউনিটকে বাড়তি সতর্কতা অবলম্বন কর‌তে নির্দেশনা দি‌য়ে থাকি। এবারও, তেমন‌টি করা হ‌য়ে‌ছে।’

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর